প্রচ্ছদ

বাইরের রোগীতে ভরে যাচ্ছে রাজধানীর হাসপাতাল

2021/07/10/_post_thumb-2021_07_10_19_28_04.jpg
কয়েকদিন ধরেই জ্বর-কাশিসহ কোভিডের নানা উপসর্গে ভুগছেন ৭০ বছর বয়সী খালেদুর রহমান। কমে গেছে অক্সিজেনের মাত্রাও। তাই শেরপুর থেকে নিয়ে আসা হয়েছে ঢাকার কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে।

৩০০ শয্যার হাসপাতালটিতে এখন ভর্তি রোগী সাড়ে তিনশো ছুঁই ছুঁই। তাই কেউ কেউ ছুটছেন অন্য হাসপাতালে।

গত এক সপ্তাহেই রাজধানীর কোভিড বিশেষায়িত হাসপাতালগুলোতে রোগী বেড়েছে ৪৩ শতাংশ। ১৬ সরকারি হাসপাতালের ১১টির সবকটি আইসিইউ রোগীতে পূর্ণ। পরিস্থিতি সামাল দিতে এবার সরকারি উদ্যোগেই রাজধানীতে হচ্ছে ফিল্ড হাসপাতাল। প্রাথমিকভাবে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় কনভেনশন সেন্টারকে রূপ দেওয়া হচ্ছে ৪০০ আইসিইউসহ ১২০০ শয্যার হাসপাতালে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, আমাদের চেষ্টা থাকবে যত দ্রুত পারা যায়, এই হাসপাতালটিকে চালু করা যায়। আমরা প্রায় ৪০০ শয্যার করোনা আইসিইউ এখানে স্থাপন করতে চাচ্ছি।

এদিকে, আগস্টের শুরুতে আরও ৬০ লাখ ফাইজারের টিকা পাঠানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছে কোভ্যাক্স। সব মিলিয়ে মাস দেড়েকের মধ্যে পৌনে দুই কোটি টিকা হাতে পাওয়ার আশা স্বাস্থ্যমন্ত্রীর।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, দেড় মাসের মধ্যে আমাদের প্রায় পৌনে দুই কোটি টিকা আমাদের কাছে থাকবে।

এছাড়া দেশেই টিকা বানানোর জন্য গোপালগঞ্জে টিকা উৎপাদন কেন্দ্র স্থাপনের পরিকল্পনা নিয়েছে সরকার।

মন্তব্য