প্রচ্ছদ

১ জনেই অসহায়, ৩০০ জনকে সামাল দিবে কিভাবে?

2022/06/13/_post_thumb-2022_06_13_06_19_53.jpg

নির্দেশনা না মানলে নাকি কিছুই করার নাই।  এমন অসহায়ত্ব প্রকাশ করেছেন খোদ প্রধান নির্বাচন কমিশনার। একজন সংসদ সদস্যের কাছেই অসহায়ত্ব প্রকাশ। অ এই নির্বাচন কমিশনই আবার নিরপেক্ষ জাতীয় নির্বাচনের কথা বলছেন।

প্রশ্ন উঠেছে যারা একজনের কাছেই অসহায় তারা জাতীয় নির্বাচনে ৩০০ জনকে সামাল দিবে কিভাবে?

কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে আচরণ বিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ উঠেছিল আওয়ামী সংসদ সদস্য বাহাউদ্দিনের বিরুদ্ধে। এলাকা ত্যাগ করার অনুরোধ জানিয়ে তাঁকে চিঠি দিয়েছিল নির্বাচন কমিশন। বাহাউদ্দিন এলাকা ছাড়েন নি। বরং নির্বাচন কমিশনের চিঠির বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে আদালতে মামলা করেছেন।

রবিবার এবিষয়ে শেখ হাসিনা মনোনীত প্রধান নির্বাচন কমিশনার কাজী হাবিবুল আওয়ালের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছিল সাংবাদিকরা। জবাবে তিনি অসহায়ত্ব প্রকাশ করেছেন। বলেছেন, তাদের কিছুই করার নেই।

রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে এক মতবিনিময় সভা শেষে সাংবাদিকরা তাঁকে এবিষয়ে প্রশ্নটি করেছিলেন।

কুমিল্লা নির্বাচনে আপনাদের চিঠি বাস্তবায়ন হয়নি, সাংবাদিকদের এমন এক প্রশ্নের জবাবে সিইসি বলেন, ‘আমাদের আচরণবিধিতে বলা আছে, অতি গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিরা এলাকায় থাকবেন না, থেকে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবেন না বা প্রচার চালাবেন না। কুমিল্লার সংসদ সদস্য তেমনটা করছিলেন বলে আমাদের কাছে প্রতীয়মান হয়েছে। আমরা কিন্তু আমাদের এখান থেকে তাঁকে চিঠি দিয়ে বলেছি, এলাকা ত্যাগ করার জন্য। তিনি ত্যাগ করেননি। শুনেছি, তিনি আদালতে মামলা করেছেন।’

কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেন, ‘আমাদের আচরণ বিধিমালাতে এটা আছে, যদি সরে থাকেন তাহলে নির্বাচনটা ভালো হয়। সেই চিঠি আমরা প্রকাশ্যে দিয়েছি। এটাই যথেষ্ট একজন সংসদ সদস্যের জন্য, সেটা সম্মান করা। যদি তিনি সম্মান না করেন, তাহলে সেখানে আমাদের তেমন কিছু করার নেই।’

মন্তব্য