প্রচ্ছদ

চাঁপাইনবাবগঞ্জে গণধোলাই খেলো ছাত্রলীগ নেতারা

2022/06/16/_post_thumb-2022_06_16_20_56_41.jpg

চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুরে ছাত্রলীগের ৮,১০ জন নেতা-কর্মীকে গণধোলাই দিয়েছে স্থানীয়রা।

মঙ্গলবার (১৪ জুন) সন্ধ্যায়   ব্যবসায়ের পার্টনারশীপ নিয়ে উপজেলার পার্বতীপুর ইউনিয়নের মাধাইপুর মোড়ে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, উপজেলার বাংগাবাড়ি ইউনিয়নের ব্রজনাথপুর গ্ৰামের শরিফুল ও ফরহাদ যৌথভাবে আম ব্যবসা করে। দুইজনই ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। এক পর্যায়ে ফরহাদ শরিফুলের নিকট কিছু টাকা পাওনা রয়ে যায়। ওই টাকা বেশ কয়েকবার চাওয়ার পরও শরিফুল ফেরত না দেওয়ায় ফরহাদ বিষয়টি ছাত্রলীগ নেতাদের জানায়। ফলে মঙ্গলবার বিকেলে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহরিয়ার জামান আনসারী ও রহনপুর ইউসুফ আলী সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি দুরুল হোদা, জোহরুল, শাকিল, মোস্তাকিন সহ বেশ কয়েকজন মাধাইপুর মোড়ে শরিফুলের ভাই শারিকুল ইসলাম সাদ্দামের আমের আড়তে এসে হমুক ধামকি দেয়। এক পর্যায়ে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহরিয়ার জামান আনসারী সাদ্দামকে চড়-থাপ্পর মারে এবং তাকে উঠিয়ে নেয়ার জন্য টানা হেঁচড়ে করে। সাদ্দামের চিৎকারে স্থানীয় লোকজন জড়ো হয়ে ছাত্রলীগ নেতাদের মারধর শুরু করে। মারধরের বিষয়টি এক পর্যায়ে গনপিটুনিতে রুপ নিলে ছাত্রলীগ নেতা শাহরিয়ার সহ কয়েকজন ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে আসে। তবে কলেজ সভাপতি দুরুল হোদা সহ আরো একজনকে জনতা আটক করে রাখে। পরে পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধার করে।

গোমস্তাপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দিলীপ কুমার দাস জানান, মাধাইপুর মোড়ে একটি ঘটনা ঘটেছে বলে আমি জেনেছি। তবে বিষয়টি পাওনা টাকা উদ্ধারের জন্য এক পক্ষ হয়ে ছাত্রলীগের কিছু নেতাকর্মী ওখানে গিয়ে ঝামেলা করার চেষ্টা করেছিল। কিন্তু পরে জনগণের ধাওয়া খেয়ে তারা পালিয়ে আসে। এ বিষয়ে থানায় একটি অভিযোগ জমা দেয়া হয়েছে।

মন্তব্য