ঢাকা ০৩:৩৭ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের ওপর হামলা ভাঙচুর, আহত ১০

নিউজ ডেস্ক:-
  • আপডেট সময় ০৬:৩৮:৪৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ ডিসেম্বর ২০২৩
  • / ৪৪ বার পড়া হয়েছে

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের ওপর হামলা ও নির্বাচনি অফিস ভাঙচুর করেছে নৌকার সমর্থকরা। এতে সংঘর্ষে স্বতন্ত্র প্রার্থীর অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় রানা সরকার নামে নৌকার সমর্থককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে পৌর তাড়িয়াপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

সংঘর্ষে গুরুতর আহত সাদ্দাম হোসেন (৩২), রোকন মিয়া (২৮), কফিল (২৫), ফারুক হোসেন (২৫), ফরহাদ (২২), রুবেল (৩০), হামজা (১৮), ও দেলখোশ মিয়াকে (৪০) সরিষাবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা যায়, নির্বাচন পরিচালনা করার জন্য পৌরসভার শিমলাপল্লী গ্রামের তাড়িয়াপাড়া এলাকায় স্বতন্ত্র প্রার্থী ডা. মুরাদ হাসান এমপির (ঈগল) সমর্থকরা অফিস করেন। প্রতিদিন এ অফিসে তার সমর্থকরা নির্বাচনি প্রচার-প্রচারণার কাজ চালিয়ে আসছেন। হঠাৎ করে নৌকার প্রার্থী মাহবুবুর রহমান হেলালের সমর্থকরা লাঠিসোটা নিয়ে মুরাদ হাসান এমপির নির্বাচনি অফিসে হামলা চালান। এ সময় তাদের মধ্যে ধাওয়া পালটা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সংঘর্ষ চলাকালে নির্বাচন পরিচালনা অফিসটি ভাঙচুর করেন নৌকার সমর্থকরা।

এ ঘটনায় মঙ্গলবার ডা. মুরাদ হাসান এমপির প্রতিনিধি সাখাওয়াত আলম মুকুল বাদী হয়ে নৌকার সমর্থক হামলাকারী ২৫ জনের বিরুদ্ধে সরিষাবাড়ী থানায় একটি মামলা করেছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের ওপর হামলা ভাঙচুর, আহত ১০

আপডেট সময় ০৬:৩৮:৪৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৬ ডিসেম্বর ২০২৩

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকদের ওপর হামলা ও নির্বাচনি অফিস ভাঙচুর করেছে নৌকার সমর্থকরা। এতে সংঘর্ষে স্বতন্ত্র প্রার্থীর অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় রানা সরকার নামে নৌকার সমর্থককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে পৌর তাড়িয়াপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

সংঘর্ষে গুরুতর আহত সাদ্দাম হোসেন (৩২), রোকন মিয়া (২৮), কফিল (২৫), ফারুক হোসেন (২৫), ফরহাদ (২২), রুবেল (৩০), হামজা (১৮), ও দেলখোশ মিয়াকে (৪০) সরিষাবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা যায়, নির্বাচন পরিচালনা করার জন্য পৌরসভার শিমলাপল্লী গ্রামের তাড়িয়াপাড়া এলাকায় স্বতন্ত্র প্রার্থী ডা. মুরাদ হাসান এমপির (ঈগল) সমর্থকরা অফিস করেন। প্রতিদিন এ অফিসে তার সমর্থকরা নির্বাচনি প্রচার-প্রচারণার কাজ চালিয়ে আসছেন। হঠাৎ করে নৌকার প্রার্থী মাহবুবুর রহমান হেলালের সমর্থকরা লাঠিসোটা নিয়ে মুরাদ হাসান এমপির নির্বাচনি অফিসে হামলা চালান। এ সময় তাদের মধ্যে ধাওয়া পালটা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সংঘর্ষ চলাকালে নির্বাচন পরিচালনা অফিসটি ভাঙচুর করেন নৌকার সমর্থকরা।

এ ঘটনায় মঙ্গলবার ডা. মুরাদ হাসান এমপির প্রতিনিধি সাখাওয়াত আলম মুকুল বাদী হয়ে নৌকার সমর্থক হামলাকারী ২৫ জনের বিরুদ্ধে সরিষাবাড়ী থানায় একটি মামলা করেছেন।