ঢাকা ০৬:০৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ৯ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

‘পুলিশের সামনে ছাত্রলীগ আমাকে গুলি করেছে’

নিউজ ডেস্ক:-
  • আপডেট সময় ১২:৫৩:২২ অপরাহ্ন, শনিবার, ৯ মার্চ ২০২৪
  • / ৯৯ বার পড়া হয়েছে

কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন উপ-নির্বাচনে নগরীর ১৯ নম্বর ও ৫ নম্বর ওয়ার্ডের ভোটকেন্দ্রে প্রতিপক্ষ প্রার্থীর সমর্থকদের সঙ্গে গোলাগুলি।

কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন উপ-নির্বাচনে নগরীর ১৯ নম্বর ও ৫ নম্বর ওয়ার্ডের ভোটকেন্দ্রে প্রতিপক্ষ প্রার্থীর সমর্থকদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে। এছাড়া প্রতিপক্ষের কর্মীদের মাধরের করেছে ছাত্রলীগের নেতারা। এই ঘটনায় ১০ জন আহত হয়েছেন। এর মধ্যে দুজন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন।

এছাড়াও ভোটকেন্দ্র থেকে এজেন্টদের বের করে দেওয়ার অভিযোগ করেছেন ঘোড়া ও টেবিল ঘড়ি প্রতীকের প্রার্থীরা।

স্থানীয়দের সূত্রে জানা যায়, সকাল ১০ টায় কুমিল্লা নগরীর ১৯ নম্বর ওয়ার্ডের মুন্সি এম আলী উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রের পাশে ঘোড়া প্রতীকের সমর্থিত জহিরুল আহমেদ ও তুহিন নামের দুই ব্যক্তিকে লক্ষ্য করে গুলি করে ১৯ নম্বর ওয়ার্ড ছাত্রলীগের নেতা সুমন।

আহত জহিরুল ও তুহিনকে স্থানীয়দের সহযোগীতায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজে নেওয়া হয়েছে।

আহত জহিরুল বলেন, ‘ভোটকেন্দ্রের পাশে আমি দাঁড়িয়ে ছিলাম। এ সময় বাস মার্কার সমর্থক মহানগর ছাত্রলীগ নেতা সুজন আমাকে ও তুহিনকে পুলিশের সামনেই গুলি করে। এছাড়া সকাল সাড়ে ৯টায় কুমিল্লা নগরীর ৫ নম্বর ওয়ার্ডে ঘড়ি প্রতীকের এক নারী সমর্থককে মারধর করে।’

এই ঘটনায় প্রিজাইডিং অফিসার হাসান আহমেদ কামরুল বলেন, ঘটনাটি ভোটকেন্দে্রর সীমানার বাহিরে ঘটেছে। আমি বিষয়টি ম্যাজিস্ট্রেটকে জানিয়েছি।

রিটার্নিং কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন বলেন, বিষয়টি জেনে প্রয়োজনী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আজ শনিবার (৯ মার্চ) সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয় যা বিরতিহীনভাবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত চলবে। শুধু মেয়র পদে কুমিল্লায় ভোট হচ্ছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

‘পুলিশের সামনে ছাত্রলীগ আমাকে গুলি করেছে’

আপডেট সময় ১২:৫৩:২২ অপরাহ্ন, শনিবার, ৯ মার্চ ২০২৪

কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন উপ-নির্বাচনে নগরীর ১৯ নম্বর ও ৫ নম্বর ওয়ার্ডের ভোটকেন্দ্রে প্রতিপক্ষ প্রার্থীর সমর্থকদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে। এছাড়া প্রতিপক্ষের কর্মীদের মাধরের করেছে ছাত্রলীগের নেতারা। এই ঘটনায় ১০ জন আহত হয়েছেন। এর মধ্যে দুজন গুলিবিদ্ধ হয়েছেন।

এছাড়াও ভোটকেন্দ্র থেকে এজেন্টদের বের করে দেওয়ার অভিযোগ করেছেন ঘোড়া ও টেবিল ঘড়ি প্রতীকের প্রার্থীরা।

স্থানীয়দের সূত্রে জানা যায়, সকাল ১০ টায় কুমিল্লা নগরীর ১৯ নম্বর ওয়ার্ডের মুন্সি এম আলী উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রের পাশে ঘোড়া প্রতীকের সমর্থিত জহিরুল আহমেদ ও তুহিন নামের দুই ব্যক্তিকে লক্ষ্য করে গুলি করে ১৯ নম্বর ওয়ার্ড ছাত্রলীগের নেতা সুমন।

আহত জহিরুল ও তুহিনকে স্থানীয়দের সহযোগীতায় কুমিল্লা মেডিকেল কলেজে নেওয়া হয়েছে।

আহত জহিরুল বলেন, ‘ভোটকেন্দ্রের পাশে আমি দাঁড়িয়ে ছিলাম। এ সময় বাস মার্কার সমর্থক মহানগর ছাত্রলীগ নেতা সুজন আমাকে ও তুহিনকে পুলিশের সামনেই গুলি করে। এছাড়া সকাল সাড়ে ৯টায় কুমিল্লা নগরীর ৫ নম্বর ওয়ার্ডে ঘড়ি প্রতীকের এক নারী সমর্থককে মারধর করে।’

এই ঘটনায় প্রিজাইডিং অফিসার হাসান আহমেদ কামরুল বলেন, ঘটনাটি ভোটকেন্দে্রর সীমানার বাহিরে ঘটেছে। আমি বিষয়টি ম্যাজিস্ট্রেটকে জানিয়েছি।

রিটার্নিং কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন বলেন, বিষয়টি জেনে প্রয়োজনী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আজ শনিবার (৯ মার্চ) সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয় যা বিরতিহীনভাবে বিকাল ৪টা পর্যন্ত চলবে। শুধু মেয়র পদে কুমিল্লায় ভোট হচ্ছে।