ঢাকা ০২:০৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গাজীপুরে জামায়াত-শিবিরের ৯ নেতাকর্মী গ্রেপ্তার

নিউজ ডেস্ক:-
  • আপডেট সময় ১১:১২:৫২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২০ নভেম্বর ২০২৩
  • / ১৪৩ বার পড়া হয়েছে

আটক নেতা-কর্মীরা

গাজীপুর সিটি করপোরেশনের বাসন থানার তেলিপাড়া এলাকা থেকে জামায়াত-শিবিরের ৯ নেতাকর্মী আটক করেছে পুলিশ। সোমবার (২০ নভেম্বর) সকালে স্থানীয় ফারিশতা রেস্টুরেন্টের সামনে থেকে তাদের আটক করা হয় বলে জানিয়েছে বাসন থানা পুলিশ।

আটকরা হলো গাজীপুর মহানগরের বাসন থানার যোগীতলা গ্রামের মো. আবুল হাসেমের ছেলে মো. মারুফ আহমেদ, একই থানার পূর্ব চান্দনা গ্রামের মো. শাহাজাহনের ছেলে মো. রিফাত হোসেন, মহানগরের সদর থানার সামন্তপুর গ্রামের মো. নুরুল ইসলামের ছেলে মো. রাশেদুল ইসলাম নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জ থানার কায়েতপাড়া গ্রামের মো. জসিম উদ্দিনের ছেলে গাজীপুর মহানগরের পূর্ব চান্দনা গ্রামের আ. ছালাম সরকারের বাড়ির ভাড়াটিয়া মো. ইসমাইল হোসেন।

এ ছাড়া ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা নবীনগর থানার শাহবাজপুর গ্রামের মো. শাহজাহানের ছেলে গাজীপুর মহানগরের পূর্ব চান্দনা এলাকার ভাড়াটিয়া মো. ইমাম হোসাইন, গাজীপুর মহানগরের ভোগড়া জুমাপাড়া এলাকার জাহাঙ্গীর হোসেনের ছেলে মো. জোবায়ের, ঝালকাঠি জেলার কাঁঠালিয়া থানার দক্ষিণ কৈইখালী গ্রামের মো. শাহজালালের ছেলে গাজীপুর মহানগরের তেলিপাড়া গ্রামের জামিল উদ্দিন রিফাত, গাইবান্দা জেলার সাঘাটা থানার শ্যামপুর গ্রামের আ. মাবুদের ছেলে গাজীপুরের দক্ষিণ সালনা গ্রামের তাসলিমার বাড়ির ভাড়াটিয়া মো. মাজদার রহমান ও খুলনা জেলার পাইকগাছা থানার শ্রীকষ্ঠপুর গ্রামের শামসুর রহমানের ছেলে গাজীপুরের বাংলাবাজার এলাকার নুর ইসলামের বাড়ির ভাড়াটিয়া মো. রহমত আলীকেও আটক করা হয়।

বাসন থানার ওসি মো. আবু সিদ্দিক জানান, সোমবার সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের তেলিপাড়ায় ফারিশতা রেস্টুরেন্টের সামনে বিএনপি-জামায়াতের হরতাল ঘিরে নাশকতার করার চেষ্টাকালে তাদের আটক করা হয়। আটকৃতদের নামে নাশকতার মামলা দায়েরের পর গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

গাজীপুরে জামায়াত-শিবিরের ৯ নেতাকর্মী গ্রেপ্তার

আপডেট সময় ১১:১২:৫২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২০ নভেম্বর ২০২৩

গাজীপুর সিটি করপোরেশনের বাসন থানার তেলিপাড়া এলাকা থেকে জামায়াত-শিবিরের ৯ নেতাকর্মী আটক করেছে পুলিশ। সোমবার (২০ নভেম্বর) সকালে স্থানীয় ফারিশতা রেস্টুরেন্টের সামনে থেকে তাদের আটক করা হয় বলে জানিয়েছে বাসন থানা পুলিশ।

আটকরা হলো গাজীপুর মহানগরের বাসন থানার যোগীতলা গ্রামের মো. আবুল হাসেমের ছেলে মো. মারুফ আহমেদ, একই থানার পূর্ব চান্দনা গ্রামের মো. শাহাজাহনের ছেলে মো. রিফাত হোসেন, মহানগরের সদর থানার সামন্তপুর গ্রামের মো. নুরুল ইসলামের ছেলে মো. রাশেদুল ইসলাম নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জ থানার কায়েতপাড়া গ্রামের মো. জসিম উদ্দিনের ছেলে গাজীপুর মহানগরের পূর্ব চান্দনা গ্রামের আ. ছালাম সরকারের বাড়ির ভাড়াটিয়া মো. ইসমাইল হোসেন।

এ ছাড়া ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা নবীনগর থানার শাহবাজপুর গ্রামের মো. শাহজাহানের ছেলে গাজীপুর মহানগরের পূর্ব চান্দনা এলাকার ভাড়াটিয়া মো. ইমাম হোসাইন, গাজীপুর মহানগরের ভোগড়া জুমাপাড়া এলাকার জাহাঙ্গীর হোসেনের ছেলে মো. জোবায়ের, ঝালকাঠি জেলার কাঁঠালিয়া থানার দক্ষিণ কৈইখালী গ্রামের মো. শাহজালালের ছেলে গাজীপুর মহানগরের তেলিপাড়া গ্রামের জামিল উদ্দিন রিফাত, গাইবান্দা জেলার সাঘাটা থানার শ্যামপুর গ্রামের আ. মাবুদের ছেলে গাজীপুরের দক্ষিণ সালনা গ্রামের তাসলিমার বাড়ির ভাড়াটিয়া মো. মাজদার রহমান ও খুলনা জেলার পাইকগাছা থানার শ্রীকষ্ঠপুর গ্রামের শামসুর রহমানের ছেলে গাজীপুরের বাংলাবাজার এলাকার নুর ইসলামের বাড়ির ভাড়াটিয়া মো. রহমত আলীকেও আটক করা হয়।

বাসন থানার ওসি মো. আবু সিদ্দিক জানান, সোমবার সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের তেলিপাড়ায় ফারিশতা রেস্টুরেন্টের সামনে বিএনপি-জামায়াতের হরতাল ঘিরে নাশকতার করার চেষ্টাকালে তাদের আটক করা হয়। আটকৃতদের নামে নাশকতার মামলা দায়েরের পর গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।