ঢাকা ১২:২৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

অর্থমন্ত্রীর সামনে কর্মীকে চড়, উপজেলা চেয়ারম্যানকে শোকজ

নিউজ ডেস্ক:-
  • আপডেট সময় ০৬:০৯:১৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ জানুয়ারী ২০২৪
  • / ১০৯ বার পড়া হয়েছে

কুমিল্লা-১০ আসনের নাঙ্গলকোট এলাকায় নৌকার প্রার্থী অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের সামনে দলীয় কর্মীর গালে চড় মেরেছেন নাঙ্গলকোট উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সামছুউদ্দিন কালু।

এ ঘটনার সামছুউদ্দিন কালুকে কারণ দর্শানোর (শোকজ) নোটিশ দেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবার ওই আসনের নির্বাচনী অনুসন্ধান কমিটির চেয়ারম্যান জ্যেষ্ঠ সহকারী জজ রাজীব কুমার দেব মঙ্গলবার এ নোটিশ দেন।

ওই ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যায়, উপজেলা চেয়ারম্যান সামছুউদ্দিন কালু পথসভায় বক্তব্য দিচ্ছেন, তার সামনে অর্থমন্ত্রীসহ অন্যরা বসে আছেন। এ সময় হঠাৎ এক কর্মীর গালে চড় মারেন তিনি।

গত ৩০ ডিসেম্বর বিকেলে নাঙ্গলকোট উপজেলার বক্সগঞ্জ বাজারের ব্যাংক চত্বরে নির্বাচনী পথসভায় ওই ঘটনা ঘটে।

শোকজ নোটিশে বলা হয়, আপনি (কালু) নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী পথসভায় ৩০ ডিসেম্বর বক্সগঞ্জ এলাকায় দলীয় এক কর্মীর গালে চড় মেরেছেন। আপনার এমন কার্যকলাপ অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনী পরিবেশের পরিপন্থি। এতে আপনি গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশের স্পষ্ট লঙ্ঘন করেছেন বলে প্রতীয়মান হয়। আপনার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে কেন নির্বাচন কমিশনে সুপারিশসহ প্রতিবেদন পাঠানো হবে না, তা ৪ জানুয়ারি সহকারী জজ আদালতে (বরুড়া) হাজির হয়ে কারণ দর্শাতে বলা হলো।

বিষয়টি জানতে ভুক্তভোগী ও অভিযুক্তদের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাদের পাওয়া যায়নি।

ট্যাগস :

নিউজটি শেয়ার করুন

অর্থমন্ত্রীর সামনে কর্মীকে চড়, উপজেলা চেয়ারম্যানকে শোকজ

আপডেট সময় ০৬:০৯:১৭ অপরাহ্ন, বুধবার, ৩ জানুয়ারী ২০২৪

কুমিল্লা-১০ আসনের নাঙ্গলকোট এলাকায় নৌকার প্রার্থী অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের সামনে দলীয় কর্মীর গালে চড় মেরেছেন নাঙ্গলকোট উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সামছুউদ্দিন কালু।

এ ঘটনার সামছুউদ্দিন কালুকে কারণ দর্শানোর (শোকজ) নোটিশ দেওয়া হয়েছে। মঙ্গলবার ওই আসনের নির্বাচনী অনুসন্ধান কমিটির চেয়ারম্যান জ্যেষ্ঠ সহকারী জজ রাজীব কুমার দেব মঙ্গলবার এ নোটিশ দেন।

ওই ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যায়, উপজেলা চেয়ারম্যান সামছুউদ্দিন কালু পথসভায় বক্তব্য দিচ্ছেন, তার সামনে অর্থমন্ত্রীসহ অন্যরা বসে আছেন। এ সময় হঠাৎ এক কর্মীর গালে চড় মারেন তিনি।

গত ৩০ ডিসেম্বর বিকেলে নাঙ্গলকোট উপজেলার বক্সগঞ্জ বাজারের ব্যাংক চত্বরে নির্বাচনী পথসভায় ওই ঘটনা ঘটে।

শোকজ নোটিশে বলা হয়, আপনি (কালু) নৌকা প্রতীকের নির্বাচনী পথসভায় ৩০ ডিসেম্বর বক্সগঞ্জ এলাকায় দলীয় এক কর্মীর গালে চড় মেরেছেন। আপনার এমন কার্যকলাপ অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনী পরিবেশের পরিপন্থি। এতে আপনি গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশের স্পষ্ট লঙ্ঘন করেছেন বলে প্রতীয়মান হয়। আপনার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে কেন নির্বাচন কমিশনে সুপারিশসহ প্রতিবেদন পাঠানো হবে না, তা ৪ জানুয়ারি সহকারী জজ আদালতে (বরুড়া) হাজির হয়ে কারণ দর্শাতে বলা হলো।

বিষয়টি জানতে ভুক্তভোগী ও অভিযুক্তদের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাদের পাওয়া যায়নি।