ঢাকা ০৮:৫৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
‘শেখ হাসিনার আহ্বানে আমরা স্বতন্ত্র দাঁড়িয়েছি, আমরা আওয়ামী লীগের বাইরের কেউ না

নেত্রী মনে করলে বিরোধী দল গঠন করব: এ. কে. আজাদ

নিউজ ডেস্ক:-
  • আপডেট সময় ০৭:১৪:৫৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ জানুয়ারী ২০২৪
  • / ২০৬ বার পড়া হয়েছে

ফরিদপুর-৩ আসনের নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য এ. কে. আজাদ বলেছেন, ‘শেখ হাসিনার আহ্বানে আমরা স্বতন্ত্র দাঁড়িয়েছি, আমরা আওয়ামী লীগের বাইরের কেউ না।

যদি নেত্রী মনে করেন আমাদের বিরোধী দল গঠন করা উচিত, তাহলে হবে। যেহেতু মাত্র ১১টি সিট পেয়েছে জাতীয় পার্টি, স্বতন্ত্র পেয়েছে ৬২টি সিট।’

মঙ্গলবার দুপুরে ফরিদপুর শহরের ঝিলটুলিতে নিজ বাসভবনে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

এ. কে. আজাদ বলেন, ‘অলরেডি আমাকে অনেক বিদেশি ফোন করেছে যে আপনাকে নিয়ে চিন্তা করা হচ্ছে, আপনি বিরোধী দলের নেতা হতে রাজি আছেন কি-না। আমি বলেছি যে, সবকিছুই প্রধানমন্ত্রীর সাথে আলোচনাসাপেক্ষে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে, ওনার আলোচনার বাইরে তো আমরা যেতে পারব না।’

লিখিত বক্তব্যে তিনি তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী শামীম হকের বিরুদ্ধে ভোটের দিন বিভিন্ন কেন্দ্রে প্রভাব খাটিয়ে ভোট কেটে নেওয়ার অভিযোগ করেন। তিনি বলেন, ‘আচরণবিধি ভঙ্গ ও শান্তিপূর্ণ ভোট বানচালের অপচেষ্টার অভিযোগে নৌকার প্রার্থী শামীম হককে আইনের আওতায় আনা উচিত।’

এ. কে. আজাদ বলেন, সরকারের স্বদিচ্ছা ও প্রশাসন আন্তরিক হলে ফরিদপুরকে সন্ত্রাস ও দুর্নীতিমুক্ত করা সম্ভব। এসময় তিনি সারাদেশে স্বতন্ত্র প্রার্থীদের মধ্য থেকে বিজয়ীদের নিয়ে সংসদে বিরোধী দল গঠন করার ইঙ্গিত দেন।

এছাড়াও তিনি সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ, দুর্নীতিমুক্ত সমাজগঠন ও মানসম্পন্ন শিক্ষাব্যবস্থা চালু করে নির্বাচনী ইসতেহার বাস্তবায়নে সকলকে দল মত ভুলে একজোট হয়ে কাজ করার আহ্বান জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন

‘শেখ হাসিনার আহ্বানে আমরা স্বতন্ত্র দাঁড়িয়েছি, আমরা আওয়ামী লীগের বাইরের কেউ না

নেত্রী মনে করলে বিরোধী দল গঠন করব: এ. কে. আজাদ

আপডেট সময় ০৭:১৪:৫৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৯ জানুয়ারী ২০২৪

ফরিদপুর-৩ আসনের নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য এ. কে. আজাদ বলেছেন, ‘শেখ হাসিনার আহ্বানে আমরা স্বতন্ত্র দাঁড়িয়েছি, আমরা আওয়ামী লীগের বাইরের কেউ না।

যদি নেত্রী মনে করেন আমাদের বিরোধী দল গঠন করা উচিত, তাহলে হবে। যেহেতু মাত্র ১১টি সিট পেয়েছে জাতীয় পার্টি, স্বতন্ত্র পেয়েছে ৬২টি সিট।’

মঙ্গলবার দুপুরে ফরিদপুর শহরের ঝিলটুলিতে নিজ বাসভবনে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

এ. কে. আজাদ বলেন, ‘অলরেডি আমাকে অনেক বিদেশি ফোন করেছে যে আপনাকে নিয়ে চিন্তা করা হচ্ছে, আপনি বিরোধী দলের নেতা হতে রাজি আছেন কি-না। আমি বলেছি যে, সবকিছুই প্রধানমন্ত্রীর সাথে আলোচনাসাপেক্ষে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে, ওনার আলোচনার বাইরে তো আমরা যেতে পারব না।’

লিখিত বক্তব্যে তিনি তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী শামীম হকের বিরুদ্ধে ভোটের দিন বিভিন্ন কেন্দ্রে প্রভাব খাটিয়ে ভোট কেটে নেওয়ার অভিযোগ করেন। তিনি বলেন, ‘আচরণবিধি ভঙ্গ ও শান্তিপূর্ণ ভোট বানচালের অপচেষ্টার অভিযোগে নৌকার প্রার্থী শামীম হককে আইনের আওতায় আনা উচিত।’

এ. কে. আজাদ বলেন, সরকারের স্বদিচ্ছা ও প্রশাসন আন্তরিক হলে ফরিদপুরকে সন্ত্রাস ও দুর্নীতিমুক্ত করা সম্ভব। এসময় তিনি সারাদেশে স্বতন্ত্র প্রার্থীদের মধ্য থেকে বিজয়ীদের নিয়ে সংসদে বিরোধী দল গঠন করার ইঙ্গিত দেন।

এছাড়াও তিনি সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ, দুর্নীতিমুক্ত সমাজগঠন ও মানসম্পন্ন শিক্ষাব্যবস্থা চালু করে নির্বাচনী ইসতেহার বাস্তবায়নে সকলকে দল মত ভুলে একজোট হয়ে কাজ করার আহ্বান জানান।